ENGLISH  |  ARABIC  |  NNBDJOBS  |  BLOG
ব্রেকিং নিউজ

নিজস্ব প্রতিবেদক

১৯ নভেম্বর ২০২১, ১৩:১১

মালদ্বীপের আকাশে ডানা মেলছে ইউএস বাংলা

22211_IMG-20211119.jpg
নীল সাগরের দেশ মালদ্বীপের আকাশে প্রথমবারের মতো ডানা মেলেছে ইউএস বাংলা এয়ারলাইন্স।

আজ শুক্রবার সকালে শাহ জালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে ফ্লাইটের উদ্বোধন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী।

তিনি বলেন, সরাসরি ফ্লাইট চালুর ফলে দুই দেশের পর্যটন শিল্পের প্রসার হবে। এতে মালদ্বীপের নাগরিকরা আমারদের চা বাগান , সুন্দরবনসহ বিভিন্ন অঞ্চলে ঘুরে দেখতে পারবেন। এর মাধ্যমে বন্ধুপ্রতীম দুই দেশে শ্রমিকরা সহজে যাতায়াত করতে পারবে। দুই দেশের সব যাত্রীর যাত্রা হবে সহজ ও আরামদায়ক।

সরকার এর চেষ্টায় এভিয়েশন শিল্প ঘুরে দাঁড়িয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, বিশ্বের ৯০তম এভিয়েশন মেগাসিটি হবে ঢাকা। যা জিডিপি প্রবৃদ্ধির ক্ষেত্রে অন্যতম ভূমিকা পালন করবে। এছাড়াও বিমানবন্দরের তৃতীয় টার্মিনালের কাজ চলমান। যা শেষ হলে আমরা ২২ মিলিয়ন প্যাসেঞ্জার হ্যান্ডেল করতে পারবো বলেও জানান তিনি।

তিনি আরো বলেন, আগামী ১৫ বছরে এভিয়েশন শিল্প ৩গুন হবে। এছাড়াও আগামী বছর যুক্ত হতে যাচ্ছে আরো ২ টি কোম্পানি। সরকার বন্ধ হওয়া সব এয়ারপোর্ট খুলে দিয়ে সম্প্রসারণ ও উন্নয়ন করছে। যা এভিয়েশন ও পর্যটন শিল্পের বিকাশে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখবে।

মালদ্বীপ হাই কমিশনার শিরুজিমাথ সামির বলেন, বাংলাদেশ মালদ্বীপ বন্ধুত্বপূর্ন সম্পর্ক রয়েছে। সরাসরি ফ্লাইট চালুর মাধ্যমে এ সম্পর্ক অনন্য উচ্চতায় পৌঁছাবে। দুই দেশের মধ্যে ব্যবসায়িক ও অর্থনৈতিক সম্পর্কের পথ আরো সুগম হবে।

ইউএস বাংলা ব্যাবস্থাপনা পরিচালক আবদুল্লাহ আল মামুন বলেন, এ ফ্লাইট চালুর মাধ্যমে মাসিক ১ মিলিয়ন ইউএস ডলার ফরেন মানি দেশে ফিরে আসবে। এছাড়া ইউএস বাংলার ফ্লাইট চালুর ফলে মালদ্বীপ বাংলাদেশী শ্রমিক অধ্যুষিত হওয়ায় ফ্লাইট ভাড়া ৬৫ হাজার টাকা থেকে কমিয়ে ২০ থেকে ২৫ হাজার টাকায় নামিয়ে এসেছে। যা সবার জন্য আনন্দের।

ইউএস বাংলা জানায়, সপ্তাহে ৩ দিন চলবে এ ফ্লাইট। মঙ্গলবার, শুক্রবার ও রবিবার চলবে বিশেষ এ ফ্লাইট।

ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স প্রতি মঙ্গলবার ঢাকা থেকে সকাল ১১টা ১০ মিনিট মালদ্বীপের রাজধানী মালের উদ্দেশ্যে উড্ডয়ন করবে এবং স্থানীয় সময় দুপুর ২টা ৩৫ মিনিটে মালেতে অবতরণ করবে। একই দিন বিকাল ৩টা ৩৫মিনিটে মালে থেকে উড্ডয়ন করে রাত ৮টা ৩৫মিনিটে ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে অবতরণ করবে।

প্রতি শুক্রবার ঢাকা থেকে সকাল ১০টা ৪৫ মিনিট মালের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাবে এবং স্থানীয় সময় দুপুর ২টা ১৫ মিনিটে মালেতে অবতরণ করবে। একই দিন বিকাল ৩টা ১৫মিনিটে মালে থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসবে এবং রাত ৮টা ১৫মিনিটে ঢাকায় অবতরণ করবে।

এছাড়া প্রতি রবিবার ঢাকা থেকে সকাল ৯টা ৩০ মিনিট মালের উদ্দেশ্যে উড্ডয়ন করে স্থানীয় সময় দুপুর ১২টা ৫০ মিনিটে মালেতে অবতরণ করবে। একই দিন দুপুর ১টা ৫৫মিনিটে মালে থেকে উড্ডয়ন করে সন্ধ্যা ৬টা ৫৫মিনিটে ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে অবতরণ করবে।

এছাড়াও বর্তমানে দুটি বিশেষ প্যাকেজে চলবে এ বিশেষ ফ্লাইট। ৩ দিন ২ রাতের প্যাকেজে জনপ্রতি মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ৫৮ হাজার ৯৯০ টাকা। আর ৪ দিন ৩ রাতের প্যাকেজে জনপ্রতি মূল্য ৬৪ হাজার ৪৯০ টাকা।

ফ্লাইটের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বেবিচকের সদস্য (পরিচালনা ও পরিকল্পনা) এয়ার কমডোর সাদিকুর রহমান চৌধুরী, বাংলাদেশে অবস্থিত মালদ্বীপ হাই কমিশনের হাই কমিশনার শিরুজিমাথ সামির, ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মামুন।